ট্রেনে কালোবাজারি ঠেকাতে গিয়ে বদলি হতে হলো এ.ডি.সিকে

অপরাধ ঠেকাতে "সীলগালা" করায় দুষ্টু চক্রের প্রভাবে এই বদলি।

0
1030

দিনাজপুর থেকে ঢাকার ট্রেনের টিকিটের মূল্য ৮৯২ টাকা (এসি চেয়ার) হলেও ১১শ’ টাকা নেন রেলস্টেশনে মুঠোফোন রবির অনলাইন টিকিট এজেন্ট সালাম সরকার।

তাৎক্ষণিক ভ্রাম্যমাণ আদালত বসিয়ে সালাম সরকারকে ছয় মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড এবং নগদ ২০ হাজার টাকা জরিমানা করেন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আফতাবুজ্জামান আল ইমরান। এ সময় উপস্থিত সালাম সরকারের লোকেরা এডিসিকে দেখে নেয়ার হুমকি দিয়েছিল।

এ ঘটনা ঘটে এ বছরের ২০ মে। এর মাত্র ১৩ দিন পর গত ৩ জুন এডিসি নুরুজ্জামানকে প্রত্যাহার করে অন্যত্র বদলি করার জন্য জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ে চিঠি দেন দিনাজপুরের জেলা প্রশাসক (ডিসি) ড. আবু নঈম মুহাম্মদ আবদুছ ছবুর। এরপর গত ৭ জুন এডিসি নুরুজ্জামানকে চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা পরিষদের সচিব পদে বদলি করা হয়। এ ঘটনায় মাঠপ্রশাসনের কর্মকর্তাদের মধ্যে তীব্র প্রতিক্রিয়ার সৃষ্টি হয়েছে। সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে এসব তথ্য।

দিনাজপুরের এডিসি নুরুজ্জামানকে প্রত্যাহার করে অন্যত্র বদলি করার জন্য জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ে লেখা চিঠিতে ডিসি বলেন, ‘গত ২০ মে দিনাজপুর রেলস্টেশনে টিকিট কালোবাজারির বিরুদ্ধে মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করা হয়। অভিযান পরিচালনার একপর্যায়ে ঘটনাস্থলে উপস্থিত হন অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট মো. নুরুজ্জামান। তিনি একজন টিকিট কালোবাজারিকে হাতেনাতে ধরেন। তার সঙ্গে কথা কাটাকাটির একপর্যায়ে ঘটনাস্থলে অনাকাঙ্ক্ষিত পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়। এ ঘটনায় দিনাজপুরে আইনশৃঙ্খলাজনিত সমস্যার উদ্ভব হওয়ার আশঙ্কা রয়েছে এবং প্রশাসনের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ণ হতে পারে। এর পরিপ্রেক্ষিতে এডিসি নুরুজ্জামানকে জেলা প্রশাসন থেকে প্রত্যাহারপূর্বক অন্যত্র পদায়ন করা প্রয়োজন মর্মে প্রতীয়মান হয়।’

এর পরই গত ৭ জুন এডিসি নুরুজ্জামানকে বদলির প্রজ্ঞাপন জারি করে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়। বিষয়টি নিয়ে দিনাজপুরের ডিসি ড. আবু নঈম মুহাম্মদ আবদুছ ছবুর কোনো মন্তব্য করতে রাজি হননি।

যখনই স্থানীয় প্রভাবশালীদের দুর্নীতির বিরুদ্ধে কোনো ব্যবস্থা নেয়া হয় তখনই মাঠপ্রশাসনের কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে এ ধরনের ব্যবস্থা নেন প্রশাসনের কর্তাব্যক্তিরা। মোবাইল কোর্ট পরিচালনার সময়ই দণ্ডিত ব্যক্তির লোকেরা এডিসি নুরুজ্জামানকে দিনাজপুর থেকে বিদায় করার হুমকি দিয়েছিল। প্রশাসনের কর্তাব্যক্তিরা অপরাধীদের হুমকি বাস্তবায়নে সহায়তা করেছেন।

Facebook Comments

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here